Home » ছাদ ধসে দুর্ঘটনার শঙ্কায় বারান্দায় ক্লাস করছেন শিক্ষার্থীরা

ছাদ ধসে দুর্ঘটনার শঙ্কায় বারান্দায় ক্লাস করছেন শিক্ষার্থীরা

by প্রিয় দেশ ডেস্ক:

বাগেরহাটের মোরেলগঞ্জ উপজেলার ২৪৮ নং রূপচাঁদ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ছাদের পলেস্তারা পড়ছে অনবরত। ছাদ ধসে পড়ে বড় কোনো দুর্ঘটনার আশঙ্কায় বারান্দায় ক্লাস করছেন শিক্ষার্থীরা। অনেক অভিভাবকও তাদের ছেলে-মেয়েদের স্কুলে পাঠাতে ভয় পাচ্ছেন। শিক্ষা কর্মকর্তারা বলছেন, বিদ্যালয়টি পুনর্নির্মাণের জন্য সরকারিভাবে পরিকল্পনা রয়েছে। কিন্তু বিদ্যালয়ের জমি নিয়ে ঝামেলার কারণে উদ্যোগ থেমে রয়েছে।

সরেজমিনে গিয়ে জানা গেছে, ১৯৭৬ সালে প্রতিষ্ঠিত বিদ্যালয়ে ২০০১-২০০২ সালে ৪ কক্ষবিশিষ্ট এ ভবনটি নির্মিত হয়। ২০১৮ সালের দিকে বিদ্যালয়টি ক্লাস করার অনুপযোগী হয়ে পড়ে। ছাদ থেকে পলেস্তারা খসে খসে পড়ছে। ২০১৯ সালে বিদ্যালয়ের ছাদসহ বিভিন্ন স্থানে ফাটল দেখা দেয়। বিকল্প ভবন বরাদ্ধ না থাকায় কোনোমতে মেরামত করে শিক্ষার্থীদের ক্লাস চালানো হয়। বিদ্যালয়টি ভোট কেন্দ্র ও প্রাথমিকের পরীক্ষা কেন্দ্র হিসেবেও ব্যবহৃত হয়ে আসছে।

প্রধান শিক্ষক ফারজানা রহমান বিথী বলেন, ‘গত মঙ্গলবার বেলা ১২টার দিকে ক্লাস চলাকালীন হঠাৎ করে ৫ম শ্রেণির কক্ষের ছাদের পলেস্তারা খসে পড়ে। এসময় অল্পের জন্য রক্ষা হয় ওই শ্রেণির ১৮ জন শিক্ষার্থীর। এ ঘটনার পরপরই আমি বিষয়টি সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষকে অবহিত করি। বিদ্যালয়ের জমি নিয়ে একজন প্রতিপক্ষ অহেতুক হস্তক্ষেপ করায় নির্মাণ কার্যক্রমে প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি হয়েছে। এ সমস্যা সমাধানে আমি স্থানীয় এমপির সহযোগিতাও চেয়েছি।’

সংশ্লিষ্ট ক্লাস্টারের সহকারী শিক্ষা অফিসার স্বজল মহলী জানান, এ ঘটনার পরপরই তিনি ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন। পাশাপাশি ওই ভবনে পাঠদান না করানোর জন্য শিক্ষকদের নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে।

উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তা মো. জালাল উদ্দিন বলেন, ‘এ বিদ্যালয়টি পুনর্নির্মাণের জন্য সরকারিভাবে পরিকল্পনা রয়েছে। কিন্তু বিদ্যালয়ের জমি নিয়ে ঝামেলার কারণে বিষয়টি থেমে রয়েছে।’

উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. জাহাঙ্গীর আলম বলেন, ‘শিক্ষার্থীদের শিখন-শেখানো কার্যক্রম পরিচালনার জন্য প্রয়োজনীয় নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে। বিষয়টি নিয়ে উপজেলা পরিষদের শিক্ষা কমিটিতে সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হবে।’


এই বিভাগের আরো খবর

Leave a Comment